আইএস জঙ্গীদের নতুন ফর্মূলা : আত্নঘাতি হামলায় এবার মানুষের পরিবর্তে গৃহপালিত পশুর ব্যবহার।

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:

ইরাকের আইএসআইএস জঙ্গিরা আত্মঘাতী বোমা বিস্ফোরণে মানুষের বদলে গরুর ব্যবহার শুরু করেছে। যুক্তরাষ্ট্রের সংবাদপত্র দ্য নিউ ইয়র্ক টাইমসের বরাত দিয়ে এই তথ্য জানিয়েছে যুক্তরাজ্যের গণমাধ্যম ডেইলি মেইল।

গত শনিবার ইরাকের উত্তরাঞ্চলের আল ইসলাহ গ্রামের বাসিন্দারা বিস্ফোরক দ্রব্য বাঁধা দুটি গরু দেখেছে বলে জানিয়েছেন দিয়ালা প্রদেশের পুলিশ কমান্ডার কর্নেল গালিব আল-আতিয়া। গরুগুলো বসতবাড়ির কাছাকাছি গেলে রিমোটের সাহায্যে বিস্ফোরণ ঘটানো হয়।

দ্য নিউ ইয়র্ক টাইমসের মতে, এই বিস্ফোরণের ঘটনায় কেউ হতাহতের শিকার হয়নি বলে জানিয়েছেন কর্নেল গালিব আল-আতিয়া।

এমনিতেই অঞ্চলটিতে মাংস ও দুধের জন্য গরুর দাম অনেক। এর ওপর আইএস আত্মঘাতী বোমা বিস্ফোরণে ব্যবহার শুরু করলে গরুর দাম আরও বাড়তে পারে বলে মনে করা হচ্ছে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, তারা কখনও এভাবে কোনও গরুকে মেরে ফেলতে দেখেননি।

অবশ্য বোমা বিস্ফোরণে পশুর ব্যবহার নতুন নয়। ইরাকে ২০০৩ থেকে ২০০৯ সালের গৃহযুদ্ধে আল কায়েদা বোমা বিস্ফোরণের ক্ষেত্রে মৃত পশু ব্যবহার করত। এর ফলে অনেক মানুষ হতাহত হয়।

এছাড়া আফগানিস্তানে ২০১৩ সালে ন্যাটোর তিন সৈন্যকে হত্যার জন্য আত্মঘাতী বোমা বিস্ফোরণে একটি গাধা ব্যবহার করে তালেবান।

পুলিশ কমান্ডার কর্নেল আল-আতিয়া বলেন, এই হামলা ইসলামিক স্টেটের অস্তিত্বের ইঙ্গিত দিচ্ছে এবং তারা গ্রেপ্তার এড়াতে পশু ব্যবহারের মাধ্যমে বোমা বিস্ফোরণ ঘটাতে চায়।

Share the post
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply