আবারো বন্দুকযুদ্ধ, কক্সবাজার শহরে ২ সন্ত্রাসী নিহত।

আব্দুল গফুর, কক্সবাজার পৌরসভা:

অদ্য (১৬/০৯/১৯) ভোররাতে কক্সবাজার শহরের কাটাপাহাড় ও কবিতা চত্বর এলাকায় পুলিশের সাথে পৃথক বন্দুকযুদ্ধে ২ যুবক নিহত হয়েছে। এবং ঘটনাস্থল থেকে দু’টি অস্ত্র ও ইয়াবা উদ্ধার করেছে পুলিশ।

কাটাপাহাড়ে সংঘটিত বন্দুকযুদ্ধের ঘটনায়  নিহত যুবকের নাম রিফাত( ২৫)। সে  কক্সবাজার শহরের বাহারছড়া এলাকার আব্দুল খালেকের ছেলে। এবং কবিতা চত্বরে সংঘটিত বন্দুকযুদ্ধে নিহত যুবকের নাম নাজমুল হক রাজা মিয়া। তিনি কক্সবাজার সদর উপজেলার ঝিলংজা ইউনিয়নের খুরুলিয়া গ্রামের মো: ইউচুপের ছেলে।

নিহত রিফাত একটি চিহ্নিত সন্ত্রাসী ও ছিনতাইকারি এবং রাজা মিয়া একজন অস্ত্রধারি সন্ত্রাসী ও ইয়াবা ব্যবসায়ী বলে দাবি করেছেন কক্সবাজার মডেল থানা পুলিশের পরিদর্শক (তদন্ত) মো: খাইরুজ্জামান। তিনি বলেন,গতরাত অনুমানিত সাড়ে বারোটার দিকে পুলিশের একটি টহল টিম কাটা পাহাড় এলাকায় টহলে যায়। এ সময় কিছু বুঝে উঠার আগে একদল অস্ত্রধারী লোক পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি করতে থাকে। পুলিশের সদস্যরা আত্মরক্ষার্থে পাল্টা ‍গুলি চালাই। সন্ত্রাসীদের গুলিতে পুলিশের কনস্টেবল হাসান ও অসীম আহত হয়। এক পর্যায়ে সন্ত্রাসীরা পালিয়ে গেলে ঘটনাস্থল থেকে রিফাতকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় উদ্ধার করা হয়। এ সময় একটি অস্ত্র ও গুলি উদ্ধার করা হয়। দ্রুত হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষনা করেন।

অপরদিকে কবিতা চত্বর এলাকায় এক লোকের গুলিবিদ্ধ মরদেহ দেখতে পেয়ে স্থানীয় লোকজন পুলিশকে খবর দেয়। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে লাশ উদ্ধার করে জেলা সদর হাসপাতালের মর্গে নিয়ে আসে। মরদেহের পাশে থাকা একটি অস্ত্র ও ইয়াবা উদ্ধার করে পুলিশ। পরে নিহতের আত্মীয় স্বজন মরদেহটি রাজা মিয়ার বলে নিশ্চিত করেন।

রাজা মিয়া একজন সন্ত্রাসী ও চিহ্নিত ইয়াবা ব্যবসায়ী বলে জানিয়েছেন পুলিশ। গত শুক্রবার খরুলিয়া মসজিদের জুমার নামাজ আদায়কালে এক যুককে কোপানোর ঘটনার প্রধান আসামী ছিলো রাজা মিয়া।

পৃথক ঘটনায় মামলা দায়ের করা হবে বলে জানিয়েছেন পুুুুলিশের এ কর্মকর্তা।

Share the post
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply