উখিয়ায় তৈরিকৃত ৭৫ টি ঘর হস্তান্তরের অপেক্ষায়

মোহাম্মদ হোসেন, উখিয়া:

উখিয়া উপজেলার পাঁচটি ইউনিয়নে ৭৫টি ঘর নির্মাণ করা হয়েছে। দুঃস্হ ও হতদরিদ্র পরিবারকে আবাসন ব্যবস্থা নিশ্চিত করার লক্ষ্য ত্রাণ ও দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা মন্ত্রণালয় ৯৮ লক্ষ ৭৫ হাজার ৫শত টাকা ব্যয়ে এ কর্মসূচি বাস্তবায়ন করছেন।জানা যায়, উপজেলার হলদিয়া পালং, রত্নাপালং, জালিয়াপালং, রাজাপালং ও পালংখালী ইউনিয়নে ৭৫ টি ঘর নির্মাণ করা হয়েছে। সমাজের অসহায় ও অবহেলিত এলাকার সুবিধা বঞ্চিত জনগোষ্ঠীকে আবাসন ব্যবস্থা করে দেওয়ার নির্মিত্তে এসব গৃহ নির্মাণ করা হয়।উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন অফিস সূত্রে জানা যায়, দুইটি পৃথক কর্মসূচির আওতায় গৃহ বা ঘর গুলো তেরি করা হয়েছে। ইট সিমেন্ট বালি রড ও টিন দিয়ে নির্মাণ কৃত ঘর গুলো এখন হস্তান্তরের অপেক্ষায় রয়েছে।সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, জমি আছে ঘর নাই এ কর্মসূচির আওতায় ৬০ টি ঘর এবং দুর্যোগ সহনীয় বাস গৃহ নির্মাণ কর্মসূচীর আওতায় ১৫ টি গৃহ তৈরি করা হয়।উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা (পিআইও) মোহাম্মদ আল মামুন বলেন, প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের অগ্রধিকার মূলক কর্মসূচির আওতায় এক লক্ষ টাকা করে ৬০ লক্ষ টাকা ব্যয়ে ৬০টি ঘর নির্মাণ কাজ শেষ হয়েছে।আরো পড়ুন ::  কক্সবাজার ও বান্দরবানে সরকারি হচ্ছে আরও আটটি কলেজএছাড়াও দুর্যোগ মন্ত্রণালয় কাবিটা কর্মসূচীর আওতায় ৩৮ লক্ষ৭৫ হাজার ৫ শত টাকা ব্যয়ে আরো ১৫টি দুর্যোগ সহনীয় ঘর তেরি করা হয়।পিআইও আরও বলেন, উপজেলা প্রশাসনের সার্বিক তত্ত্বাবধানে ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ নিকারুজ্জান চৌধুরীর দিকনির্দেশনায় উক্ত প্রকল্পের ঘর গুলোর নির্মান কাজ বাস্তবায়ন করা হয়েছো।বর্তমানে উক্ত বাড়ি গুলো উপকারভোগী সদস্যদের কে হস্তান্তরের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।খোঁজ খবর নিয়ে জানা গেছে, স্হানীয় স্ব স্ব ইউনিয়নের জনপ্রতিনিধিদের মনোনীত ব্যক্তিদের কে সদ্য নির্মাণকৃত ঘর আনুষ্ঠানিকভাবে চলতি মাসেই হস্তান্তর করা হবে।

Share the post
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply