চকরিয়ায় সম্পত্তির লোভে বৃদ্ধকে পিটিয়ে হত্যা: স্ত্রী-সন্তান আটক, মেঝ সন্তান পলাতক

সুনীপ দাশ সৌরভ, চকরিয়া :: 

কক্সবাজারের চকরিয়া উপজেলার বরইতলী ইউনিয়নের ৮ নম্বর ওয়ার্ডের সবুজপাড়ায় স্ত্রী সবুর খাতুন এবং দুই সন্তান সেকাব উদ্দিন ও মামুন মিলে পিটিয়ে হত্যা করেছেন আলতার হোসেন নামের ৬০ বছরের এক বৃদ্ধকে। সম্পত্তির লোভে পড়ে মেঝ ছেলে সেকাবের পরিকল্পনায় ওই বৃদ্ধকে মঙ্গলবার দিবাগত রাতে স্ত্রী ও দুই সন্তান মিলে হাতুড়ি দিয়ে পিটিয়ে হত্যা করা হয় বলে স্থানীয়দের উদ্বৃতি দিয়ে পুলিশ জানিয়েছে।

আজ ২২ জুলাই (বুধবার) সকাল আটটার দিকে স্থানীয়দের সহায়তায় পুলিশ বৃদ্ধের লাশ উদ্ধার করে সুরতহাল প্রতিবেদন শেষে ময়নাতদন্তের জন্য কক্সবাজার সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।

নিহত বৃদ্ধের নাম আলতার হোসেন (৬০)। তিনি ওই গ্রামের মৃত মোজাহের আহমদের পুত্র। এ ঘটনায় আটকৃতরা হলেন স্ত্রী সবুরা খাতুন (৫০) ও ছোট ছেলে কোরআনে হাফেজ মোহাম্মদ মামুন (১৮)।

বরইতলী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান জালাল আহমদ সিকদার বলেন, ‘তিনবছর ধরে বৃদ্ধ আলতার হোসেনের সঙ্গে বিরোধ দেখা দেয় স্ত্রী ও দুই সন্তানের। এর জের ধরে পরিকল্পিতভাবে এই হত্যাকাণ্ড ঘটানো হয়েছে।’

এ ব্যাপারে চকরিয়া থানার ওসি মো. হাবিবুর রহমান ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে বলেন, ‘পুলিশের প্রাথমিক তদন্তে স্ত্রী ও দুই সন্তান মিলে ওই বৃদ্ধকে পিটিয়ে হত্যা এবং তাঁর শরীরের একাধিক স্থানে জখমের চিহ্ন পাওয়া গেছে। লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য কক্সবাজার সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। এ ঘটনায় আটক করা হয়েছে স্ত্রী ও এক ছেলেকে। এই হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় পরবর্তী আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হচ্ছে।’

Share the post
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply