চ্যাম্পিয়নস লিগের সেমিতে নেই ‘শীর্ষ তিন’ লিগের কেউ

চ্যাম্পিয়নস লিগের সেমিতে নেই ‘শীর্ষ তিন’ লিগের কেউ

ইউরোপিয়ান ক্লাব ফুটবলে প্রাধান্য দেয়া হয় সাধারণত পাঁচটি দেশের লিগকে। যেগুলো হলো ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগ, স্প্যানিশ লা লিগা, ইতালিয়ান সিরি আ, জার্মান বুন্দেসলিগা ও ফ্রেঞ্চ লিগ ওয়ান। তবে এই পাঁচ লিগের মধ্যেও আবার প্রিমিয়ার লিগ, লা লিগা ও সিরি আ’কে দেয়া ধরা হয় অন্য দুইটির চেয়ে এগিয়ে।

যেমন এই কদিন আগেই ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো সিরি আ’তে পঞ্চাশ গোল পূরণ করার পর বলাবলি করা হচ্ছিল, শীর্ষ তিন লিগে পঞ্চাশের বেশি গোল করা একমাত্র ফুটবলার রোনালদো। অথচ তার আগেই বুন্দেসলিগা, প্রিমিয়ার লিগ ও সিরি আ’তে পঞ্চাশ গোল করেছিলেন এডিন জেকো। কিন্তু জেকোর বেলায় আমলে নেয়া হয়নি বুন্দেসলিগার পঞ্চাশ গোল।

মূলত প্রায় সব ক্ষেত্রেই অন্য তিন লিগের চেয়ে কম মূল্যায়ন করা হয় বুন্দেসলিগা ও লিগ ওয়ানকে। তবে এবারের উয়েফা চ্যাম্পিয়নস লিগের আসরেই এ দুই লিগের দলগুলো প্রমাণ করে দিলো, তারা অন্যদের চেয়ে কম নন। ইউরোপিয়ান শ্রেষ্ঠত্বের টুর্নামেন্টে সেমিফাইনালে ওঠা চারটি দলই বুন্দেসলিগা ও লিগ ওয়ানের।

সেমিফাইনালের প্রথম ম্যাচে ইতালিয়ান ক্লাব আটলান্টাকে বিদায় জানিয়ে সেরা চারে পা রেখেছিল ফ্রেঞ্চ লিগ চ্যাম্পিয়ন প্যারিস সেইন্ট জার্মেই। দ্বিতীয় সেমিতে রুপকথার ন্যায় স্প্যানিশ ক্লাব অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদকে হারিয়ে দেয় ইতালিয়ান ক্লাব আর বি লাইপজিগ। তৃতীয় ম্যাচে বার্সেলোনাকে বিধ্বস্ত করেছে জার্মান ক্লাব বায়ার্ন মিউনিখ। আর সবশেষ সেমিতে ইংলিশ ক্লাব ম্যানচেস্টার সিটির বিদায়ঘণ্টা বাজিয়েছে ফ্রেঞ্চ ক্লাব অলিম্পিক লিওন।

অর্থাৎ এবারের চ্যাম্পিয়নস লিগের সেমিফাইনালে দেখা যাবে বুন্দেসলিগা ও লিগ ওয়ান থেকে দুইটি করে দল। বুন্দেসলিগা থেকে সেমিতে উঠেছে বায়ার্ন মিউনিখ ও আর বি লাইপজিগ। লিগ ওয়ান থেকে সেরা চারে নাম লিখিয়েছে প্যারিস সেইন্ট জার্মেই ও অলিম্পিক লিওন।

অথচ গ্রুপপর্ব পেরিয়ে শেষ ষোলোতে পা রেখেলেছিল প্রিমিয়ার লিগ, লা লিগা ও সিরি আ’র মোট ১১টি ক্লাব। যেখান থেকে কোয়ার্টারে ওঠার লড়াইয়ে বাদ পড়ে যায় লিভারপুল, রিয়াল মাদ্রিদ, নাপোলি, চেলসি, ভ্যালেন্সিয়া, টটেনহ্যাম ও জুভেন্টাস। আর শেষ আট থেকে বাদ পড়লো বার্সেলোনা, অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদ, ম্যানচেস্টার সিটি ও আটলান্টা।

Share the post
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply