দলের নগদ অর্থ ও অস্ত্র নিয়ে প্রেমিকার সঙ্গে উধাও মাওবাদী নেতা

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ

প্রেমিকাকে সঙ্গে নিয়ে স্কোয়াড ছেড়ে পালিয়েছেন মাওবাদী নেতা মহারাজ প্রামাণিক। সঙ্গে নিয়ে গেছেন সংগঠনের চল্লিশ লাখ টাকা, একাধিক বন্দুক, বেশ কিছু কার্তুজ, ট্যাব, ওয়াকিটকি, মোবাইলসহ আরও কিছু জিনিসপত্র। খবর : আনন্দবাজার পত্রিকা।

মহারাজের এই অপরাধের জন্য তাকে গণ-আদালতে বিচার করে শাস্তি দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে মাওবাদীরা। সম্প্রতি সিপিআই (মাওবাদী) দক্ষিণ জোনাল কমিটির পক্ষে তাদের মুখপাত্র অশোক হিন্দিতে লেখা একটি প্রেস বিবৃতি দিয়ে এই সিদ্ধান্তের কথা জানিয়েছেন।

মহারাজের বাড়ি ঝাড়খণ্ডের সরাইকেলা খরসোয়া জেলার ইছাগড় থানার দারুদা গ্রামে। একসময় ঝাড়খণ্ড পুলিশে গাড়ি-চালকের চাকরি পান। ২০০৮ সালে একাধিক চুরির ঘটনায় নাম জড়িয়ে যাওয়ায় তাকে দুবার জেল খাটতে হয়।

জেল থেকে বেরিয়ে আসার পরই যোগ দেন মাওবাদীদের সঙ্গে। মহারাজের সাংগঠনিক ক্ষমতা ভালো থাকায় দ্রুত উত্থান ঘটতে থাকে সংগঠনে।

২০১১ সালে এরিয়া কমিটির সদস্য থাকাকালীন মহারাজের সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে সিপিআই (মাওবাদী) সংগঠনের এরিয়া কমিটির সদস্যা বেলুন সর্দারের। তাদের দুজনের প্রেমের সম্পর্ক নজর এড়ায়নি সংগঠনের নেতৃত্বেরও। কিন্তু সংগঠনের অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ওই নেতার ব্যক্তিগত জীবনে নাক গলাননি সংগঠনের অন্যান্যরা।

সেই প্রেমিকাকে নিয়েই স্বাধীনতা দিবসের আগের রাতে স্কোয়াড ছেড়ে পালান মহারাজ।

Share the post
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply