পেকুয়ায় ঘরের তালা ভেঙ্গে আসবাবপত্র লুটের অভিযোগ

দিদার, পেকুয়া প্রতিনিধিঃ

কক্সবাজারের পেকুয়া উপজেলার টইটং ইউনিয়নের বসত ঘরের তালা ভেঙ্গে আসবাবপত্র লুট করেছে দুর্বৃত্তরা। এমনই অভিযোগ এনে ইউনিয়ন পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যানকে অভিযোগ করেছেন ভুক্তভোগী পরিবার। ঘটনাটি ঘটেছে ১৬ জুন (মঙ্গলবার) দুপুর সাড়ে ১২ টার দিকে অত্র ইউনিয়নের পাহাড়ী জনপদ পূর্ব ঢালার মুখ এলাকায়। ঘটনা চার দিন অতিবাহিত হলেও বিচারের বাণী কাঁধে নিয়ে ঘুরছে অসহায় সাবিকুন্নাহার।
জানা যায়, আইয়ুব আলীর পুত্র নবী হোসেনের বসত ঘরে স্থানীয় কিছু লোক তালা ভেঙ্গে ঘরে ঢুকে অবস্থান নেয়। ওই সময় দুর্বৃত্তরা বসতঘরে সংরক্ষিত আসবাবপত্র লুট করার চেষ্টা করে।
স্থানীয় আবুল হোসেনসহ অনেকে বলেন, ঘটনার দিন দুপুরে একজন মহিলাসহ তিনজন লোক পাশের বাড়ি সাবিকুন্নাহার এর ঘরে অবস্থান নেয়। একটি মহিলা সমিতির টাকা নিয়ে সাবিকুন্নাহার ও তাদের মধ্যে বাকবিতণ্ডা হয়। এর জের ধরে ওই দুর্বৃত্তরা বসত ঘরের তালা ভেঙ্গে ফেলে।

সেই বসতবাড়ি


সাবিকুন্নাহার জানান, ঘটনার দিন আমার স্বামী ঘরে ছিলনা। আমিও বাপের বাড়ি ছিলাম। ঐদিন দুপুরে কিছু লোক আমার বসত ঘর দখল নিতে চেষ্টা করে। খবর পেয়ে দ্রুত আমি ঘরে যাই। ঘরে এসে দেখতে পাই একজন মহিলা ও দুজন পুরুষ ঘরের ভিতরে প্রবেশ করে । আমাকে দেখতে পেয়ে স্থানীয় পুতন আলীর ছেলে আবু সৈয়দ ও তার স্ত্রী মরিয়ম বেগমসহ অজ্ঞাত ৪/৫ জন লোক ঘরের আসবাবপত্র তছনছ ও লুট করে নিয়ে যাচ্ছিল। ওই সময় আমি তাদের বাধা দিলে দুর্বৃত্তরা হামলার চেষ্টা চালায়। প্রাণে বাঁচতে ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে আমি শ্বশুর বাড়িতে চলে আসি।পরে সাবিকুন নাহারের স্বজনরা এগিয়ে আসলে দুর্বৃত্তরা ঘটনাস্থল ত্যাগ করেন। যাওয়ার সময় ওই বসত ঘরে অপর একটি তালা লাগিয়ে দেয়। ফলে আসবাবপত্র ও মালামাল ক্ষতির পরিমাণ এখনো জানা যায়নি।
বিষয়টি স্থানীয় সমাজের প্রতিনিধি মজিবুর রহমান চৌধুরী ও ইউনিয়ন পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান আলহাজ্ব শাহাব উদ্দিনকে অবগত করেছি।
টইটং ইউনিয়ন পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান আলহাজ্ব শাহাব উদ্দিন বলেন, একটি মহিলা সমিতির কিছু টাকা নিয়ে ভুল বোঝাবুঝি হয়েছে। তবে ঘরের তালা ভেঙ্গে অন্যের ঘরে প্রবেশ ও মালামাল তছনছ করা জঘন্য অপরাধ। আজ শনিবার বিকেলে সরোজমিনে গিয়ে বিষয়টি খতিয়ে দেখা হবে।

Share the post
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply