বোয়ালখালীতে প্রবাসীর স্ত্রীকে গণধর্ষণ, নারীসহ গ্রেপ্তার-৩

চট্টগ্রামের বোয়ালখালী পৌর এলাকায় বাসায় আটকে রেখে এক গৃহবধূকে ধর্ষণের অভিযোগে নারীসহ ৩ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। শনিবার (৩১ জুলাই) বোয়ালখালী পৌরসভার ৬নং ওয়ার্ড এলাকায় এই ঘটনা ঘটে। পরে ওই গৃহবধূ ৩ জনকে আসামি করে বোয়ালখালী থানায় মামলা দায়ের করলে পুলিশ তাদের গ্রেফতার করে।

গ্রেফতারকৃতরা হলেন, বোয়ালখালী পৌরসভার ৬নং ওয়ার্ড মীরপাড়ার বদি আলমের ছেলে কামাল হোসেন (প্রকাশ ধামা কামাল) (৪২), নুরুল ইসলামের ছেলে গিয়াস উদ্দিন (২৮) ও ৫নং সারোয়াতলী ইউনিয়নের আবুল বশরের স্ত্রী রোকেয়া বেগম (৩০)।

মামলার বাদী বলেন, শনিবার (৩১ জুলাই) বিকেলে তার ৭ মাসের কন্যা সন্তান অসুস্থ হওয়ায় তাকে বোয়ালখালী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসেন। এ সময় ফার্মেসি থেকে ওষুধ ক্রয় করতে এসে টাকার সল্পতার কারণে পূর্বপরিচিত রোকেয়া বেগমের কাছে ফোন করে দুই হাজার টাকা ধার চান। রোকেয়া বেগম টাকা ধার দেয়ার নাম করে তাকে রফিক নামের একব্যক্তির মাধ্যমে ভাড়া বাসায় নিয়ে যান। এ সময় রোকেয়া বেগম এবং ওই এলাকার কামাল হোসেন ও গিয়াস উদ্দিন পাশের একটি কক্ষে নিয়ে গিয়ে গৃহবধূর মোবাইল ছিনিয়ে নেয়। এক পর্যায়ে রোকেয়া বেগম কক্ষ থেকে বের হয়ে বাইরে থেকে ছিটকিনি লাগিয়ে দেয়। পরে দুইজন মিলে ওই গৃহবধূকে পালাক্রমে ধর্ষণ করে।

বোয়ালখালী থানার ওসি আব্দুল করিম বলেন, যে ঘরটিতে ধর্ষণ করা হয়েছিল বলে অভিযোগ সেটি ওই নারীর পূর্ব পরিচিতি রোকেয়ার ভাড়া করা বাসা। ধর্ষণের অভিযোগকারী ওই নারীকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ওয়ান স্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে (ওসিসি) পাঠানো হয়েছে বলে তিনি জানান।তিনি আরো বলেন, অভিযোগ পাওয়ার সাথে সাথে অভিযান চালিয়ে আসামিদের গ্রেফতার করা হয়েছে। রবিবার তাদের আদালতে পাঠানো হয়েছে।

Share the post
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply