ভোলায় ট্রলারে তরুণীকে ‘দলবেঁধে ধর্ষণ’, গ্রেপ্তার ৫

[ad_1]

উপজেলার কুকরী
মুকরী ইউনিয়নের নারিকেল বাগান থেকে রবিবার ভোরে পাঁচজনকে গ্রেপ্তার করা হয়। এর
আগের রাতে ওই এলাকায় এ ঘটনা ঘটে বলে দক্ষিণ আইচা থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মিলন
কুমার ঘোষ জানান।
গ্রেপ্তাররা হলেন- দক্ষিণ আইচা ৬ নম্বর ওয়ার্ডের খলিল মিয়ার ছেলে ইউসুফ হাসান
সর্দার (২১), ৫ নম্বর ওয়ার্ডের হাকিম সিকদারের ছেলে সোহেল রানা সিকদার (২০),
চরমানিকা ৩ নম্বর ওয়ার্ডের মোকাম্মেল সিকদারের ছেলে ওয়াসেল আহমেদ সিকদার (২২), চর
কচ্ছপিয়া নম্বর ওয়ার্ডের আবুল কাশেম হাওলাদারের ছেলে মোরশেদ হাওলাদার (৩৫) ও একই
এলাকার ইসমাইল ফকিরের ছেলে রিপন ফকির (২০)।

কোস্টগার্ড ঘটনাস্থল
থেকে এ পাঁচজনকে আটক করে দক্ষিণ আইচা থানায় হস্তান্তর করে। এ ঘটনায় নারী ও শিশু
নির্যাতন দমন আইনে মামলা দায়ের হয়েছে বলে পুলিশ জানায়।

পরিদর্শক মিলন বলেন, শনিবার
রাতে ঘটনাস্থলে একটি ভাসমান ট্রলার দেখতে পেয়ে কোস্টগার্ড সদস্যদের সন্দেহ হয়। পরে
তারা এগিয়ে গিয়ে দেখেন , ট্রলারের ভেতরে এক তরুণী হাত বাঁধা অবস্থায় বাঁচানোর
আকুতি জানিয়ে চিৎকার করছে।

পরে কোস্ট গার্ড ওই
নারীকে উদ্ধার এবং পাঁচজনকে আটক করে থানায় হস্তান্তর করে বলে জানান তিনি।

মিলন বলেন, “মেয়েটির তাদের
জানায় যে-সোহেলের সঙ্গে তার মোবাইল ফোনে কথা হতো। শনিবার সে তার মায়ের চিকিৎসার
জন্য সোহেলের কাছে টাকা চায়। তখন সোহেল তাকে টাকা আনতে ঘটনাস্থলে যেতে বলে। সে
টাকা আনতে গেলে সোহেলহ চারজন তাকে একটি ট্রলারে উঠিয়ে দলবেঁধে ধর্ষণ করে।”

গ্রেপ্তারদের আদালতের
মাধ্যমে তারাগারে পাঠানোর প্রক্রিয়া চলছে বলেও জানান এ কর্মকর্তা ।



[ad_2]

Source link

Share the post
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply