মহেশখালীর কুতুবজুমে আইন ভঙ্গ করে সন্ত্রাসী কতৃক জমি দখল; আতঙ্কে নিরীহ মানুষ

আ ন ম হাসান:

মহেশখালী উপজেলার কুতুবজোম ইউনিয়নের খোন্দকার পাড়া এলাকায় চিহ্নিত সন্ত্রাসীরা ১৪৪ ধারা ভঙ্গ করে জোর পূর্বক এক নিরীহ মানুষের দখলীয় জমি জবর দখল করে ঘিরে রেখেছে বলে জানা যায়।

সরজমিনে গিয়ে দেখা যায়, কুতুবজোম মৌজার মোহাম্মদ সাইফউদ্দিনের নামীয় বি.এস খতিয়ান নং-২১৩৭ এর ৫৭৯০ দাগের ৩১ শতক জমির প্রায় ১১ শতক জমি স্থানীয় সন্ত্রাসী সোলেমান, পিতাঃ ঈমান শরীফ, সরওয়ার, পিতা-সোলেমান, রেহেনা,স্বামী-সোলেমান গংরা জোর পূর্বক দখল করে ঘিরে রেখেছে
জমিটির মালিক মোহাম্মদ সাইফ উদ্দিন জানান, “বেশ কয়েকদিন আগে থেকেই তাদের এই রকম সন্ত্রাসী আচরণ বুঝতে পেরে আমি মাননীয় অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিষ্ট্রেট আদালত, কক্সবাজার এর নিকট আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে বিগত ০৪.০১.২০২১ তারিখ এম.আর মামলা নং-৭৮/২০২১ইং মূলে ফৌঃকাঃবিঃ ১৪৪ ধারা জারী করেন। কিন্তু সন্ত্রাসী সোলেমান গংরা মাননীয় আদালতের আদেশ অমান্য করে এবং ১৪৪ ধারা ভঙ্গ করে বিগত ০৯.০১.২০২১ তারিখ দিন দুপুরে আমার দখলীয় জমি অস্ত্রসস্ত্রসহ জোর পূর্বক জবর দখল করে ঘিরে ফেলে। আমি মৌখিকভাবে তাদের বাধা দিলে তারা আমাকে লাঞ্ছিত করে তাড়িয়ে দেয়। আমি এই বিষয়ে গত ০৯.০১.২০২১ তারিখ মহেশখালী থানাকে অবগত করে তাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করি। গত ১০.০১.২০২১ তারিখ পুলিশ সরেজমিনে তদন্ত করে এবং ১২.০১.২০২১ তারিখ মাননীয় সহকারী কমিশনার (ভূমি), মহেশখালীকে এই বিষয়ে নথিপত্রসহ অবহিত করি।


জমিটি নিয়ে যেকোন সময় রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষ হওয়ার ব্যপক আশংকা রয়েছে বলে জানান স্থানীয় বাসিন্দারা। সন্ত্রাসীদের জবর দখলের কারণে তারাও নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছেন বলে মন্তব্য করেন পার্শ্ববর্তী স্থানীয় বাসিন্দারা।

এই ব্যপারে উক্ত জায়গা পরিদর্শনকারী এসআই আব্দু রব জানান, দু পক্ষকে নিয়ে বিষয়টি সমাধান করার চেষ্টা করতেছি।

Share the post
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply