মহেশখালী পৌরসভায় দুই হাজার জেলেদের মাঝে চাউল বিতরণ

মিসবাহ ইরান, মহেশখালী:

মহেশখালী পৌরসভায় সরকারি নিষেধাজ্ঞা মেনে চলা জেলেদের মাঝে ত্রাণ বিতরণ করা হয়। এতে পৌরসভার ২ হাজার জেলেদের প্রত্যেককে ৩০ কেজি করে চাল দেয়া হয়।

মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার পক্ষ থেকে সমুদ্রে ৬৫দিন মাছ ধরা বন্ধ ছিল।তারই প্রেক্ষিতে ১৮ই জুলাই (রবিবার) মহেশখালী পৌরসভার পাঁচ ওয়ার্ডের নতুন ও পুরাতন নিবন্ধিত কর্মহীন জেলেদের মাঝে মহেশখালী পৌর মেয়র আলহাজ্ব মকছুদ মিয়ার তত্বাবধানে ২য় ধাপে জন প্রতি ৩০ কেজি করে সরকারে বিশেষ ত্রাণ বিতরণ করেন।

নতুন ও পুরাতন নিবন্ধিত জেলেদের মাঝে সমন্নয় করে বিশেষ ত্রাণ বিতরণকালে মেয়র আলহাজ্ব মকছুদ মিয়া বলেন- আপনারা মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর জন্য দোয়া করবেন, যাতে বাংলাদেশের মানুষের সুখে দুঃখে দাড়াঁতে পারে!আপনাদের যে কোন বিপদে আপদে বর্তমান সরকার সাহায্যের হাত পূর্বেও বাড়িয়ে দিয়েছিল এবং সামনেও দেবে। আপনারা যে কোন সময় সরকারের গৃহীত সিদ্ধান্ত মেনে চলবেন, মহামারী করোনার সংক্রমণ রোধে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলবেন!

মহেশখালী উপজেলার সিনিয়র মৎস্য কর্মকর্তা আবদু রহমান খাঁন উপস্থিত জেলেদের উদ্দেশ্যে বলেন- আপনারা সরকারের গৃহীত সিদ্ধান্ত (৬৫দিন সাগরে মাছ না ধরা) কে মেনে চলেছেন, এজন্য আপনাদেরকে ধন্যবাদ জানাই। এই বন্ধের সময় আপনাদের যাতে অভাব অনটন বেড়ে না যায় সেদিকে নজর রেখেই মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা আপনাদের জন্য চাউল বরাদ্দ দিয়েছে। আপনারা সকলেই ভাল থাকুন আর সুস্থ থাকুন সরকারের যে কোন সিদ্ধান্ত মেনে চলুন।
সুবিধাভোগী জেলেরা সাগরে এই ৬৫ দিন মাছ ধরা বন্ধের সময় ১ম ধাপে জনপ্রতি ৫৬ কেজি ২য় ধাপে ৩০কেজি চাউল পেয়ে মহা খুশি। সুবিধাভোগী জেলেরা জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সুযোগ্য কন্যা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনাসহ সংশ্লিষ্ট সকলকে আন্তরিক ধন্যবাদ জানিয়েছেন। পবিত্র ঈদুল আযহাকে সামনে রেখে বিশেষ ত্রাণের চাউল পেয়ে আমরা খুবই খুশি। এসময় উপস্থিত ছিলেন-পৌরসভার কর্মকর্তা,কর্মচারী ৫,৬,৭,৮ ও ৯ কাউন্সিলর বৃন্দ।

Share the post
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply