মাদক কারবারী-বিজিবি গোলাগুলিঃ টেকনাফে পরিত্যক্ত নৌকায় ১লাখ ২০হাজার ইয়াবা ও দেশীয় অস্ত্র উদ্ধার

মুহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলম / ফরিদুল আলম :

টেকনাফ সীমান্তে মাদক বিরোধী অভিযান চালাতে গিয়েই মাদক কারবারী এবং বিজিবি জওয়ানদের মধ্যে গোলাগুলির ঘটনা ঘটেছে। এসময় এক মাদক কারবারী গুলিবিদ্ধ হয়ে নদীতে ভাটার টানে তলিয়ে গেলেও তাদের ফেলে যাওয়া নৌকা তল্লাশী করে ১লাখ ২০হাজার ইয়াবা ও ১টি দেশীয় তৈরী অস্ত্র উদ্ধার করেছে।

সুত্র জানায়, ১৫ আগষ্ট (রবিবার) ভোররাত ৪টারদিকে টেকনাফ ২বিজিবি ব্যাটালিয়নের টেকনাফ বিওপির বিশেষ একটি টহল দল রিজভীখাল এলাকা দিয়ে মাদকের চালান পাচারের সংবাদ পেয়ে কৌশলী অবস্থান নেয়। কিছুক্ষণ পর ৩জন লোক কাঠের নৌকা নিয়ে শূন্যরেখা অতিক্রম করে বাংলাদেশ সীমান্তে অনুপ্রবেশ করতে দেখলে বিজিবি জওয়ানেরা তাদের চ্যালেঞ্জ করে সামনে অগ্রসর হতে থাকে। তখন তারা নিরুপায় হয়ে বিজিবি সদস্যদের লক্ষ্য করে গুলিবর্ষণ করে। বিজিবি জওয়ানেরা সরকারী সম্পদ ও আতœরক্ষার্থে পাল্টা গুলিবর্ষণ করলে ১জন গুলিবিদ্ধ হয়ে নদীতে পড়ে ভাটার টানে তলিয়ে যায় এবং অপর ২জন সাঁতার কেটে মিয়ানমার সীমান্তে পালিয়ে যাওয়ায় কাউকে আটক করা যায়নি।
পরে তাদের ফেলে যাওয়া নৌকা তল্লাশী করে ৩কোটি ৬০লাখ টাকা মূল্যমানের ১লাখ ২০হাজার ইয়াবা ও ১টি দেশীয় অস্ত্র উদ্ধার করা হয়েছে।

টেকনাফ ২বিজিবি ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লে: কর্ণেল মোহাম্মদ ফয়সল হাসান খান (বিজিবিএম, পিএসসি) জানান, সরকারী দায়িত্ব পালনে বাঁধা প্রদান এবং অবৈধ মাদক পাচারের দায়ে অজ্ঞাত আসামী করে মামলা দায়েরের প্রক্রিয়া চলছে।

Share the post
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply