মুচলেকা দিয়ে আদালত থেকে ছাড়া পেলেন ভূয়া মামলাধারী এনাম

নিজস্ব প্রতিবদেক, মহেশখালী:

মহেশখালী উপজেলার কালারমারছড়া ইউনিয়নের মাইজপাড়া এলাকায় এনামুল হকের বিরুদ্ধে ভূায়া ও মিথ্যা মামলা দিয়ে সাধারণ মানুষকে হয়রানী চেষ্টা করার অভিযোগ উঠেছে। জানা যায়, গতকাল ৬ আগস্ট কালারমারছড়ার মাইজ পাড়ার মৃত মোহাম্দদ শরীফের পূত্র মোঃ এনামুল হক একই এলাকার মোস্তফা সহ ৭জন সাধারণ মানুষকে মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানি করার জন্য প্রথমে মহেশখালী থানায় মিথ্যা এজাহার দেওয়ার চেষ্টা করে। পরে সেখানে ব্যার্থ হলে মহেশখালী আদালতে মামলা দায়ের করে।কিন্তু বিজ্ঞ আদালত মামলার আর্জি দেখে কোন স্বাক্ষী প্রমাণ না পাওয়ায় সত্য নয় মর্মে মামলাটি আমলে নেয়নি বলে জানিয়েছেন উক্ত মামলা আইনজীবী।এদিকে ভূক্তভোগী মোস্তফা জানান মিথ্যা আর ভূয়া মামলা দিয়ে মানুষকে হয়রানি করা এনামের কাজ।তিনি এলাকায় মামলাবাজ ও দখলবাজ হিসাবে পরিচিত।

এছাড়া আদালত ভূয়া মামলাধারী এনামুল হককে একপর্যায়ে আদালতের কাস্টোডিতে হাতকড়া দিয়ে রেখেন । পরে পরে এই ধরনের ভূয়া মামলায় সাধারণ জনগণদের হয়রানি থেকে বিরত থাকবে এমন স্বীকার উক্তিতে মুচলেকা দিয়ে আদালত থেকে ছাড়া পান ।

তার বিরুদ্ধে ভূমি দখল সংক্রান্ত মামলা রয়েছে। বিজ্ঞ আদালত সুষ্ঠু ও সুন্দর ভাবে যাচাই-বাচাই পূর্বক মিথ্যা মামলা খারিজ করে হয়রানীর হাত থেকে রক্ষা করার জন্য কৃতজ্ঞ প্রকাশ করেন।

Share the post
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply