লক্ষ্মীপুরে গণপিটুনিতে ১ ডাকাত নিহত, আহত ৫

রায়পুর, লক্ষীপুর :

লক্ষ্মীপুরের রায়পুর উপজেলায় ডাকাতির সময় গণপিটুনিতে মো. সোহেল (৩০) নামের এক ব্যক্তি নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আহত হন তাঁর পাঁচ সহযোগী। গতকাল বৃহস্পতিবার দিবাগত রাতে উপজেলার বামনী ইউনিয়নের সাগরদী গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।
নিহত সোহেলের বাড়ি চাঁদপুরের হাইমচর উপজেলায়। আহত ব্যক্তিরা হলেন মো. কাউছার (৩৩), মো. মমিন (২৯), মিরাজ হোসেন (৩০), মো. সুমন (৩২) ও মো. ইব্রাহীম (২৮)। পুলিশ পাহারায় রায়পুর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে তাঁদের চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে।

উদ্ধারকৃত অস্ত্রশস্ত্র

পুলিশ ও স্থানীয় এলাকাবাসী ও জানায়, আজ ভোর রাতে স্থানীয় জব্বার আলী বেপারি বাড়ির প্রবাসী মনিরের বসতঘরে ডাকাতিকালে বাড়ির লোকজন চিৎকার করলে আশেপাশের মানুষ ডাকাতদের ঘেরাও করে ৬ ডাকাতকে ধরে ফেলে। এসময় তাদেরকে গণপিটুনি দেয় জনতা। এতে গুরুতর আহত হন ডাকাতরা। পরে ডাকাতদের হাসপাতালে নেয়ার পর কর্তব্যরত চিকিৎসক চাঁদপুরের হাইমচরের বাসিন্দা সোহেল নামের একজনকে মৃত ঘোষণা করেন। অপর আহতরা হলেন, কাউছার, মমিন, মিরাজ, সুমন ও ইব্রাহীম।

পুলিশ জানায়, গত রাত (২২ নভেম্বর) আনুমানিক তিনটার দিকে সারগদী গ্রামের জব্বার আলী ব্যাপারীবাড়ির প্রবাসী মনির হোসেনের বসতঘরে ডাকাতেরা হানা দেয়। এ সময় বাড়ির লোকজন চিৎকার শুরু করলে আশপাশের মানুষ এসে ডাকাতদের ঘেরাও করেন। তাঁরা ছয় ডাকাতকে আটক করে পিটুনি দেন। পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে উত্তেজিত লোকজনকে শান্ত করে। এ সময় দুটি ফাঁকা গুলি ছোড়ে পুলিশ। আহত অবস্থায় ডাকাত সদস্যদের হাসপাতালে নেওয়া হলে চিকিৎসক সোহেলকে মৃত ঘোষণা করেন।

উদ্ধারকৃত অস্ত্রশস্ত্র

বর্তমানে আহতদের পুলিশি হেফাজতে চিকিৎসা চলছে। ডাকাতদের কাছ থেকে ২টি এলজি ও ৬ রাউন্ড কার্তুজ উদ্ধার করা হয়। তাদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে বলে জানান ওসি।

Share the post
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply